খেলাধুলা

টি-টোয়েন্টি সিরিজ জয়ের আশায় সাকিব

খেলাধুলার বার্তা : টেস্টের দুঃস্বপ্ন মুছে ফেলা গেছে ওয়ানডে সিরিজ জিতে। বাংলাদেশের সামনে এবার টি-টোয়েন্টির চালেঞ্জ। এই সংস্করণে বাংলাদেশের রেকর্ড যদিও কোনো কালেই খুব ভালো না। ওয়ানডেতে যতটা স্বচ্ছন্দ আর সফল, ঠিক ততটাই অস্বস্তি আর ব্যর্থ টি-টোয়েন্টিতে। কিছুদিন আগেই তারা আফগানিস্তানের কাছে হোয়াইটওয়াশ হয়েছে। এ অবস্থায় বাংলাদেশের ভরসা হলো ওয়ানডে সিরিজে পাওয়া জয়ের আত্মবিশ্বাস। এই আত্মবিশ্বাস নিয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজও জয়ের আশায় অধিনায়ক সাকিব আল হাসান।

তিন ম্যাচ সিরিজের প্রথম টি-টোয়েন্টিতে বুধবার ওয়েস্ট ইন্ডিজের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ। সেন্ট কিটসের ওয়ার্নার পার্কে ম্যাচ শুরু হবে বাংলাদেশ সময় ভোর সাড়ে ৬টায়। এই মাঠেই শেষ ওয়ানডেতে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ১৮ রানে হারিয়ে নয় বছর পর বিদেশের মাটিতে দ্বিপক্ষীয় ওয়ানডে সিরিজ জিতেছে মাশরাফি বিন মুর্তজার দল। এবার চ্যালেঞ্জ টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক সাকিবের সামনে।

২-১ ব্যবধানে জেতা ওয়ানডে সিরিজটাই টি-টোয়েন্টিতে ভালো করার ব্যাপারে আশা জোগাচ্ছে সাকিবকে, ‘আমরা টি-টোয়েন্টি সিরিজটা নিয়ে অনেক আশাবাদী। এর বড় কারণ হচ্ছে, আমরা ওয়ানডে সিরিজটা বেশ ভালো করলাম। দেশের বাইরে নয় বছর পর একটা ওয়ানডে সিরিজ জেতা আমাদের জন্য বড় একটা অর্জন। আশা করি, এই আত্মবিশ্বাস টি-টোয়েন্টি সিরিজে আমাদের কাজে আসবে। সবাই এই আত্মবিশ্বাস নিয়েই খেলতে পারবে।’

টি-টোয়েন্টি বাংলাদেশের জন্য যেমন দুর্বোধ্য , ওয়েস্ট ইন্ডিজের জন্য ঠিক তার উল্টোটা। ক্যারিবীয়দের সবচেয়ে পছন্দের ফরম্যাট এটা। টি-টোয়েন্টির বর্তমান বিশ্বচ্যাম্পিয়নও তারা। তবে প্রতিপক্ষ শক্তিশালী হলেও নিজেদের সামর্থ্যে যথেষ্ট আস্থা আছে সাকিবের, ‘আমরা জানি, বিশেষ করে টি-টোয়েন্টিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজ খুব শক্তিশালী দল। ওদের সবচেয়ে পছন্দের ফরম্যাট এটা। আর আমাদের জন্য এটা একটু কঠিন। আমি বিশ্বাস করি, আমাদের সামর্থ্য আছে ওদের বিপক্ষে নিজেদের সেরা ক্রিকেট খেলে সিরিজটা জেতার।’

টি-টোয়েন্টির জন্য দেশ থেকে উড়িয়ে নেওয়া হয়েছে সৌম্য সরকার ও আরিফুল হককে। চোটের কারণে আফগানিস্তানের বিপক্ষে খেলতে না পারা মুস্তাফিজুর রহমানও দলে ফিরেছেন। ওয়ানডেতে খেলার সুযোগ না পাওয়া লিটন দাস, আবু হায়দার রনি, আবু জায়েদ রাহী টি-টোয়েন্টিতেও আছেন। নতুনদের ভালো করার ব্যাপারে আশাবাদী অধিনায়ক।

‘বেশ কয়েকজন নতুন খেলোয়াড় আছে আমাদের টি-টোয়েন্টি দলে। আমি আশা করি, ওরা ভালো করবে। ওদের জন্য খুব রোমাঞ্চকর একটা সময়।এটা আমাদের ক্রিকেটের জন্য বড় একটা সুযোগ যে, কয়েকজন নতুন খেলোয়াড়কে এখানে খেলানোর সুযোগ পাচ্ছি। আর এটা যেহেতু নতুনদেরই খেলা, আশা করি ওরো ভালো করবে’- বলেন সাকিব।

আরও দেখুন

এরকম আরও খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close