আলোচিতসারাদেশ

স্থগিত হওয়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের বিষয়ে আলোচনা ২৪ মে

বার্তাবাহক ডেস্ক : চার সংসদীয় আসনের উপনির্বাচন আগামী জুলাই মাসে আয়োজনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে নির্বাচন কমিশন। আগামী ২৪ মে এসব উপনির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করা হবে বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনের (ইসি) সচিব মো. হুমায়ুন কবীর খোন্দকার। যে চার আসনের উপনির্বাচন আলোচনায় আছে সেগুলো হলো— লক্ষ্মীপুর-২, সিলেট-৩, ঢাকা-১৪ ও কুমিল্লা-৫।

এছাড়া স্থগিত হওয়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের বিষয়ে আজকের সভায় এ বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত হয়িন। আগামী ২৪ মে’র কমিশন সভায় এ বিষয় নিয়ে আলোচনা হবে।

বৃহস্পতিবার (১৯ মে) রাজধানীর আগারগাঁওয়ে নির্বাচন ভবনে সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান ইসি সচিব। এর আগে বিকেলে ৩টায় প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নূরুল হুদার সভাপতিত্বে কমিশন সভা অনুষ্ঠিত হয়।

বৈঠক শেষে ইসি সচিব বলেন, লক্ষ্মীপুর-২, সিলেট-৩ , ঢাকা-১৪ ও কুমিল্লা-৫— এই চারটি আসনের উপনির্বাচনের বিষয়ে কমিশন সভায় আলোচনা হয়েছে। সরকারের জারি করা বিধিনিষেধের কারণে এসব নির্বাচনের সময়সূচি এখনো ঘোষণা করা হয়নি। আগামী ২৪ মে নির্বাচন কমিশনের পরবর্তী সভা অনুষ্ঠিত হবে। ওই বৈঠকে নির্বাচনের তারিখ চূড়ান্ত করা হবে।

ইসি সচিব আরও বলেন, যেহেতু এসব আসন শূন্য হয়েছে, তাই এগুলোর উপনির্বাচন আয়োজনে সময়ের বাধ্যবাধকতা রয়েছে। তাই কমিশন এই চারটি আসনে জুলাই মাসে নির্বাচন আয়োজন করবে।

স্থগিত হওয়া ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনের বিষয়ে জানতে চাইলে ইসি সচিব বলেন, আজকের সভায় এ বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত হয়িন। আগামী ২৪ মে’র কমিশন সভায় এ বিষয় নিয়ে আলোচনা হবে।

এর আগে, লক্ষ্মীপুর-২ আসন নির্বাচিত স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য কাজী শহিদ ইসলাম পাপুল কুয়েতের ফৌজদারি আদালতে ঘোষিত রায়ে নৈতিক স্খলনজনিত ফৌজদারি অপরাধে চার বছর সশ্রম কারাদণ্ডে দণ্ডিত হন। সংবিধান অনুযায়ী ২৮ জানুয়ারি তার সংসদ সদস্যপদ শূন্য হয়।

বাকি তিন আসনের সংসদীয় আসনই সংসদ সদস্যের মৃত্যুজনিত কারণে শূন্য হয়ে যায়। এর মধ্যে সিলেট-৩ আসনের সংসদ সদস্য মাহমুদ উস সামাদ চৌধুরী করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ১১ মার্চ রাজধানীর ইউনাইটেড হাসপাতালে মারা যান। ঢাকা-১৪ আসনের সংসদ সদস্য আসলামুল হক রাজধানীর একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান গত ৪ এপ্রিল। কুমিল্লা-৪ আসনের সংসদ সদস্য সাবেক আইনমন্ত্রী আবদুল মতিন খসরু করোনায় আক্রান্ত হয়ে ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান গত ১৪ এপ্রিল। তারা তিন জনই ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য ছিলেন।

সংবিধান অনুযায়ী, কোনো সংসদীয় আসন শূন্য হলে ৯০ দিনের মধ্যে উপনির্বাচন আয়োজনের বিধান রয়েছে। তবে দৈব দুর্বিপাকের কারণে নির্বাচন করতে না পারলে আরও ৯০ দিন সময় পেছাতে পারে ইসি। এর মধ্যে ১১ এপ্রিল লক্ষ্মীপুর-২ আসনের উপনির্বাচন আয়োজনর তফসিল ঘোষণার পর সে অনুযায়ী প্রস্তুতিও নেওয়া হচ্ছিল। এর মধ্যে করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় সে নির্বাচন পেছাতে হয়েছে। ফলে নির্বাচন কমিশন আরও ৯০ দিন সময় বাড়িয়েছে এই উপনির্বাচনের জন্য। আগামী ১১ জুলাইয়ের মধ্যে সেটি হওয়ার বাধ্যবাধকতা রয়েছে।

এদিকে, সিলেট-৩ আসনের উপনির্বাচন আয়োজনের জন্য ১১ জুন, ঢাকা-১৪ আসনের ৪ জুলাই ও কুমিল্লা-৪ আসনের উপনির্বাচন আয়োজনের জন্য ১৪ জুলাই পর্যন্ত সময় রয়েছে। এই তিনটি আসনের জন্য আরও ৯০ দিন তথা ৩ মাস করে সময় বাড়ানোর সুযোগ রয়েছে।

নির্বাচন কমিশন সূত্র বলছে, জুলাইয়ে এই তিনটিসহ লক্ষ্মীপুর-২ আসনের উপনির্বাচন আয়োজন করা হবে। সেক্ষেত্রে সিলেট-৩ আসনের জন্য স্বাভাবিক ৯০ দিনের পরের ৯০ দিন সময় বাড়িয়ে নিতে হবে ইসিকে। ৪ জুলাইয়ের আগে নির্বাচন আয়োজন না করা গেলে ঢাকা-১৪ আসনের জন্যও সময় বাড়িয়ে নিতে হবে। আর নির্বাচন পিছিয়ে ১৪ জুলাইয়ের পর হলে তখন কুমিল্লা-৪ আসনের জন্যও উপনির্বাচনের সময় বাড়াতে হবে ইসিকে।

আরও দেখুন

এরকম আরও খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close