আন্তর্জাতিক

নিরাপত্তাজনিত কারণে বিলাসবহুল সাব-জেলে নওয়াজ-মরিয়ম

আন্তর্জাতিক বার্তা : পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ এবং তার মেয়ে মরিয়ম শরিফকে রাওয়ালপিন্ডির প্রধান কারাগার আদিয়ালা থেকে ইসলামাবাদের একটি বিশেষ সাব-জেলে সরিয়ে নেয়া হয়েছে। নিরাপত্তাজনিত কারণ দেখিয়ে তাদের সাব জেলে নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে পাকিস্তান সরকার।

বৃহস্পতিবার সকালে শরিফ পায়চারি করার সময় বেশ কিছু বন্দী তার বিরুদ্ধে স্লোগান দিতে থাকেন। ওই বন্দিদের গতিবিধি সন্দেহজনক হওয়ায় জেলে নওয়াজ ও মরিয়মের নিরাপত্তা বাড়িয়ে দেওয়া হয়। নিরাপত্তার কারণে তাকে জেলের মসজিদে নামাজ পড়ার অনুমতিও দেওয়া হয়নি। তিনি অবশ্য নিজের সেলেই নামাজ পড়েন।

ওই ঘটনার পর তাদের আদিয়ালা জেল থেকে সরানোর সিদ্ধান্ত নেয় দেশটির সরকার। এরপর ইসলামাবাদের কাছেই সিহালা পুলিস ট্রেনিং কলেজের পাশে সিহালা রেস্ট হাউসকে বিশেষ সাব জেল ঘোষণা করে তাদের সেখানে নেয়া হয়।

পাক গণমাধ্যম ডন জানিয়েছে, বুধবার রাতেই বম্ব স্কোয়াডের সদস্যরা সিহালার পুলিশ কলেজ এলাকা পরীক্ষা করে দেখেন। তাদের কাছ থেতে সবুজ সংকেত পাওয়ার পরই শরিফ ও মরিয়মকে সেখানে স্থানান্তরিত করা হয়। সাব জেলে নেয়ার পর ওই এলাকাটিতে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। সাব জেলে নেয়ার সময় মেয়ের সঙ্গে জেলে যাওয়ার পর প্রথম সাক্ষাৎ হয়েছে নওয়াজের।

তাছাড়া আদিয়ালা কারাগারে ঠিকমত সুবিধা দেয়া হচ্ছে না বলে নওয়াজের পরিবার যে অভিযোগ করেছিলো সেটি এবার ঘুচতে চলেছে। কারণ, এই সাব জেলে এসি, টিভি, ফ্রিজসহ যাবতীয় সুবিধা রয়েছে।

লন্ডনে বিলাসবহুল চারটি ফ্ল্যাট কেনার অর্থের উৎস দেখাতে ব্যর্থ হওয়ায় গত ৬ জুলাই নওয়াজ শরিফকে ১০ বছরের কারাদণ্ড দেয় আদালত। এছাড়া তার মেয়ে মারিয়মকে দেওয়া হয় ৭ বছরের কারাদণ্ড। গত সপ্তাহে বিমানে করে লন্ডন থেকে লাহোর ফিরতেই গ্রেপ্তার হন তারা।

আরও দেখুন

এরকম আরও খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Close