সারাদেশ

নানার বাড়ি বেড়াতে গিয়ে পুকুরে ডুবে দুই ভাই-বোনের মৃত্যু

বার্তাবাহক ডেস্ক : নানার বাড়ি বেড়াতে গিয়ে পুকুরে ডুবে দুই ভাই-বোনের মৃত্যু হয়েছে। একই সময় আরেক শিশু পুকুরে ডুবে আহত হয়েছে।

গাজীপুর জেলার শ্রীপুরের বরমী ইউনিয়নের দুলর্ভপুর এলাকায় শুক্রবার বিকেলে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলো উপজেলার গিলাশ্বর গ্রামের বাবুল হোসেনের মেয়ে সেতু (১৩) ও ছেলে তানজীদ আহমেদ (৭)।

নিহত সেতু গিলাশ্বর দাখিল মাদ্রাসায় অষ্টম শ্রেণি এবং তানজীদ গিলাশ্বর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের দ্বিতীয় শ্রেণিতে পড়ত।

পানিতে পড়ে অসুস্থ হয়েছে তাদের খালাত বোন নিহালিয়া গ্রামের আহম্মদ আলীর মেয়ে সুমাইয়া আক্তার (১০)।

বরমী ইউনিয়ন পরিষদের ৫ নম্বর ওয়ার্ড সদস্য নাজমুল হক আকন্দ রনি বলেন, সকালে সেতু, তানজীদ আহমেদ ও সুমাইয়া তাদের মায়েদের সঙ্গে দুলর্ভপুর গ্রামে তাদের নানা জালাল উদ্দিনের বাড়ি বেড়াতে যায়। বিকালে সেই বাড়ির পাশের পুকুর পাড়ে ওই তিনজনসহ পাঁচ শিশু খেলা করছিল। এক পর্যায়ে সেতু, তানজীদ ও সুমাইয়া পুকুরের পানিতে নামলে সেতু ও তানজীদ গভীর পানিতে তলিয়ে যেতে থাকে। তাদের ধরতে গিয়ে সুমরাইয়াও ডুবতে শুরু করে। ওই সময় পুকুর পাড়ে থাকা অন্য শিশুরা ঘটনা দেখে চিৎকার শুরু করলে স্বজনরা গিয়ে সুমাইয়াকে উদ্ধার করতে পারলেও সেতু ও তানজীদকে সঙ্গে সঙ্গে তুলতে পারেনি।

প্রায় আধা ঘণ্টা খোঁজাখুঁজির পর সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে পুকুর থেকে সেতু ও তানজীদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

এবং গুরুতর আহত সুমাইয়াকে বরমী এলাকার একটি বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয় বলেও জানান নাজমুল হক আকন্দ রনি।

আরও দেখুন

এরকম আরও খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এটাও পড়ুন

Close
Close